বাংলাদেশ সোসাইটি অব ব্রঙ্কস’র ২০ বছর পূর্তি উদযাপিত

0
481

 

নিউইয়র্ক: বাংলাদেশের মহান স্বাধীনতা দিবস ও বাংলাদেশ সোসাইটি অব ব্রঙ্কসের ২০ বছর পূর্তি উৎসব বর্ণিল আয়োজনে উদযাপিত হয়েছে। নিউইয়র্কের ব্রঙ্কসের ইউনিয়ন পোর্ট রোডের গোল্ডেন প্যালেসে গত ২ এপ্রিল সোমবার আয়োজন করা হয় শিশুদের চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা, প্রবাসী মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মাননা, স্মৃতিচারণ, আলোচনা, মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক পরিবেশনাসহ বর্ণাঢ্য অনুষ্ঠানমালার। বাংলাদেশ সোসাইটি অব ব্রঙ্কসের সভাপতি সাহেদ আহমদের সভাপতিত্বে আয়োজিত এই অনুষ্ঠান পরিচালনা করেছেন আশরাফুল হাসান বুলবুল, সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক সেবুল খান মাহবুব ও সহ সাধারণ সম্পাদক শামীম আহমদ।

শুরুতেই বাংলাদেশ ও আমেরিকার জাতীয় সংগীত পরিবেশন করা হয়। পবিত্র কুরআন থেকে তেলাওয়াত করেন আবু কায়সার চিশতি এবং পবিত্র গীতা পাঠ করেন নীলাদ্রী নন্দী। শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন উদযাপন কমিটির আহŸায়ক তৌফিকুর রহমান ফারুক, সৈয়দা মাহমুদা কবির, প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ সোসাইটির সভাপতি কামাল আহমেদ এবং উদ্বোধক ছিলেন নিউইয়র্কে বাংলাদেশের কনসাল জেনারেল শামিম আহসান। কী-নোট স্পীকার ছিলেন বাংলাদেশ আমেরিকান কমিউনিটি কাউন্সিলের প্রেসিডেন্ট আইনজীবী মোহাম্মদ.এন মজুমদার। অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ও বক্তব্য রাখেন স্থানীয় এসেম্বলীম্যান লুইস সেপুলভেদা, আমেরিকান-বাংলাদেশী ওয়েলফেয়ার অর্গানাইজেশনের প্রেসিডেন্ট আবদুস শহীদ, মামুন’স টিউটোরিয়ালের প্রিন্সিপাল, মূলধারার ম্যাথ টিচার শেখ আল মামুন, যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুর রহিম বাদশা, অয়েল কেয়ারের সিনিয়র ম্যানেজার সালেহ আহমেদ, বাংলা পত্রিকা সম্পাদক আবু তাহের, বাংলাদেশ সোসাইটি অব ব্রঙ্কসের সাবেক সভাপতি নূরুল আহিয়া, মাহবুব আলম, মো: শামীম মিয়া, সংগঠনের উপদেষ্টা ও সিলেট ডিস্ট্রিক্ট এসোসিয়েশনের সাবেক সভাপতি জুনেদ আহমদ চৌধুরী, বিশিষ্ট মুক্তিযোদ্ধা তোফায়েল আহমেদ চৌধুরী, মুক্তিযোদ্ধা অধ্যাপক মুজিবুর রহমান, মুক্তিযোদ্ধা খলিলুর রহমান মাস্টার ও মুক্তিযোদ্ধা আবু কায়সার চিশতি, ব্যান্ডস-এর সভাপতি সোলায়মান আলী, কমিউনিটি এক্টিভিস্ট আলমাস আলী, এস এম গোলাম রব্বানী চৌধুরী, কফিল আহমেদ চৌধুরী, মখন মিয়া, জামাল হুসেন, কেরামত আলী, বাংলাদেশ সোসাইটি অব ব্রঙ্কসের উপদেষ্টা আব্দুর রব দলা মিয়া, আবদুল মুহিত, সাবেক সাধারণ সম্পাদক এ ইসলাম মামুন, জাহেদ রুমি, পার্কচেষ্টার ব্রঙ্কস রিয়েলিটির প্রেসিডেন্ট সালেহ উদ্দিন সাল, লংজেভিটি হেলথ সার্ভিস এলএলসি’র কো-অর্ডিনেটর ও হাকিম অ্যান্ড কোং মাল্টিসার্ভিসেস’র কর্ণধার রোকন হাকিম, অয়েল কেয়ারের সার্টিফাইড এপ্লিকেশন কাউন্সিলর মান্না মুনতাসির, মেয়র অফিসের তাহিদুন মরিয়ম, ডা. সাদেক, জালালাবাদ এসোসিয়েশনের সাবেক ভাইস প্রেসিডেন্ট আবদুল বাছির খান, আরবান হেলথ প্ল্যানের কমিউনিটি আউটরিচ কর্মকর্তা মেহেরুন্নেসা জোবায়দা, বাংলাদেশী আমেরিকান উইম্যানস এসোসিয়েশনের প্রেসিডেন্ট রেক্সোনা মজুমদার, মেহের চৌধুরী, নাসরিন চৌধুরী, কামরুন্নাহার রীতা, মনিকা মন্ডল, সুপ্রিয়া নন্দী, মাকসুদা আহমদ, লোকমান হোসেন লুকু, হুমায়ুন চৌধুরী প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে বাংলাদেশী কমিউিনিটির নেতৃবৃন্দ,ব্যবসায়ী, সাংবাদিক, ছাত্র-ছাত্রী, অভিভাবকসহ বিপুল সংখ্যক প্রবাসী উপস্থিত ছিলেন। মিডিয়া কর্মীদের মাঝে ছিলেন সাপ্তাহিক জনতার কন্ঠ সম্পাদক সাখাওয়াত হোসেন সেলিম, টাইম টিভির কর্মকর্তা সৈয়দ ইলিয়াস খসরু, ঠিকানার রিপোর্টার ছন্দা বিনতে সুলতান প্রমুখ।

প্রবাসী মুক্তিযোদ্ধাদের ক্রেস্ট উপহার দিয়ে সম্মাননা জানান হয়। সম্মাননাপ্রাপ্ত মুক্তিযোদ্ধারা হলেন মুক্তিযোদ্ধা তোফায়েল আহমেদ চৌধুরী, অধ্যাপক সৈয়দ মুজিবুর রহমান, খলিলুর রহমান মাস্টার ও আবু কায়সার চিশতি। এছাড়াও নিউইয়র্কে বাংলাদেশের কনসাল জেনারেল শামিম আহসান, সব্যসাচী লেখক কবি জুলি রহমান, জালালাবাদ এসোসিয়েশনের সাবেক ভাইস প্রেসিডেন্ট আবদুল বাছির খান, সংগঠনের সাবেক সভাপতি ও সাবেক সাধারণ সম্পাদদের সম্মাননা জানানো হয়।

স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে শিশু-কিশোরদের মধ্যে অনুষ্ঠিত চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের পুরস্কৃত করা হয়। আমন্ত্রিত অতিথিদের সঙ্গে নিয়ে পুরষ্কার বিতরণ করেন অনুষ্ঠানের উদ্বোধক ও প্রধান অতিথি।

অনুষ্ঠানের সার্বিক তত্ত¡াবধানে ছিলেন আয়োজক সংগঠনের সভাপতি সাহেদ আহমদ, সহ সভাপতি তৌকিকুর রহমান ফারুক, সৈয়দা মাহমুদা কবির ও সামাদ মিয়া জাকের, সাধারণ সম্পাদক সেবুল খান মাহবুব, সহ সাধারণ সম্পাদক শামীম আহমদ, কোষাধ্যক্ষ মো: আলী রাজা, সাংগঠনিক সম্পাদক মো: আমিনুল হক (কাজী এনাম), আইন ও আন্তর্জাতিক সম্পাদক মনিকা মন্ডল, প্রচার সম্পাদক মো: ইমরান আলী, দপ্তর সম্পাদক হুমায়ুন কে সোহেল, সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক সম্পাদক জুলী রহমান, যুব ও ক্রীড়া সম্পাদক নোমান আহমদ, ধর্ম ও সমাজ সেবা সম্পাদক কাজীরুল ইসলাম, সাত্যিক সম্পাদক মো: মারুফ রশিদ, আপ্যায়ন সম্পাদক ফখরুল আলম চৌধুরী, মহিলা বিষয়ক সম্পাদিকা জেবুন্নেছা হাসান, কার্যকরী সদস্য : মোশাহীদ চৌধুরী, আব্দুল বাছির খান, প্রফেসর আমিনুল হক (চুন্নু), উমা রেশমা, শাহ কামাল, মো: আবাদ হোসেন মোল্লা, ফয়ছল আহমদ চৌধুরী ও ফখরুল ইসলাম।

প্রধান অতিথি কামাল আহমেদ বাংলাদেশ সোসাইটি অব ব্রঙ্কসের ব্যতিক্রমী নানা উদ্যোগের প্রশংসা করেন। মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মাননা জানানোর জন্য আয়োজকদের ধন্যবাদ জানান।

উদ্বোধক কনসাল জেনারেল শামিম আহসান বলেন, বর্তমান সরকারের গতিশীল নেতৃত্ব বাংলাদেশ আজ এক অনন্য উচ্চতায়। তিনি মূলধারায় বাংলাদেশীদের সম্পৃক্ত হওয়ার আহবান জানিয়ে বলেন, এতে ব্রঙ্কসবাসী অনেক দূর এগিয়ে গেছে। নিউইয়র্ক স্টেট সিনেট ও অ্যাসেম্বলি হাউসে ‘বাংলাদেশ ডে’ উদযাপনে তাদের ভূমিকা অনস্বীকার্য।

অনুষ্ঠানে সভাপতি সাহেদ আহমদ ও সাধারণ সম্পাদক সেবুল খান মাহবুব সকলকে ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন, ব্রঙ্কসের ১ম ও প্রাচীন এ সংগঠনটি দীর্ঘ ২০ বছর যাবৎ ঐহিত্য বজায় রেখে নানা কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছে। এ ধারা অব্যাহত রাখতে তারা সকলের অব্যাহত সহযোগিতা কামনা করেন। তারা অনুষ্ঠান সফল করার জন্য উদযাপন কমিটির আহŸায়ক তৌফিকুর রহমান ফারুক ও সদস্য সচিব শামীম আহমদসহ কমিটির সকলকে ধন্যবাদ জানান।

সবশেষে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশিত হয়। কবি জুলি রহমান পরিবেশন করেন মুক্তিযুদ্ধের গীতি কবিতা ঘরের ইঁদুর কাটে দাওয়া নাম যে রাজাকার, এতে তবলায় সংগত করেন আরিফ এবং গানে আহমদ বাবলা। স্বরচিত কবিতা আবৃত্তি করেন জুঁই ইসলাম। সঙ্গীত পরিবেশন করেন চ্যানেল আই’র সেরা কন্ঠ কৃষœা তিথি, ন্যান্সি খান, আনোয়ার হোসেন, মেঘলা সহ ’আমাদের পাঠশালা’র ক্ষুদে শিল্পীরা। আনন্দ-উচ্ছ¡াসে বিপুল সংখ্যক দর্শক-শ্রোতা গভীর রাত পর্যন্ত এ অনুষ্ঠান উপভোগ করেন।

অনুষ্ঠান উপলক্ষে মো. আমিনুল হক চুন্নুর সম্পাদনায় ’আমাদের ব্রঙ্কস’ নামে একটি স্মরণিকা প্রকাশ করা হয়।

অনুষ্ঠানের গ্র্যান্ড স্পন্সর ছিলেন পার্কচেস্টার ফ্যামিলি ফার্মেসির স্বত্ত¡াধিকারী গৌরব কোঠারী (মি. জি)। ব্রঙ্কস এর খ্যাতনামা খলিল বিরিয়ানী হাউজের বিরিয়ানী দিয়ে সকলকে আপ্যায়িত করা হয়। শুরুতে পার্কচেস্টার ব্রঙ্কস রিয়েলিটির সৌজন্যে অতিথিদের মাঝে এপাটাইজার দেয়া হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here